ক্যান্সারে আক্রান্ত মুরাদকে বাঁচাতে সিডনিতে ফান্ড রাইজিং ডিনার

  •  
  •  
  •  
  •  

প্রশান্তিকা ডেস্ক: ৩৭ বছরের এক টগবগে যুবকের নাম মোফাজ্জেল হোসেন মুরাদ। ক্যান্সার বাসা বেঁধেছে তার রক্তে। গত কয়েকমাস ধরে দক্ষিণ ভারতে ভেলোর ক্রিশ্চিয়ান মেডিক্যাল সেন্টারের ক্যান্সার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলো।
চিকিৎসকেরা মুরাদকে দেশে পাঠিয়ে দেয়ার সময়ে বলেছেন, “বোনম্যারো ট্রান্সপ্ল্যান্ট” করতে হবে। এই জন্য  প্রয়োজন ৪৫ থেকে ৫০ লক্ষ টাকা, যা মুরাদের পরিবার বা আত্নীয় স্বজনের আওতার বাইরে। এ লক্ষ্যে সিডনির মহৎপ্রাণ মানুষ মুরাদের জন্য আগামী ১৩ই জানুয়ারি রোববার রকডেলের পালকি রেস্টুরেন্টে একটি ফান্ড রাইজিং ডিনারের আয়োজন করেছেন। এই আয়োজনে ডিজাস্টার রিলিফ কমিটির সঙ্গে সিডনিতে বাংলাদেশী কমিউনিটির অনেক শুভাকাঙ্খীরা থাকবেন। ডিনার শুরু হবে সন্ধ্যা সাতটায়, মিনিমাম এন্ট্রি ৫০ ডলার।
ডিনারে আসতে আগ্রহীরা পোস্টারে প্রদর্শিত আয়োজকদের সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারেন এবং বাংলাদেশ অস্ট্রেলিয়া ডিজাস্টার রিলিফ কমিটির অ্যাকাউন্ট নাম্বারে অ্যাডভান্স পে করতে পারেন অথবা ডিনার পার্টিতে ক্যাশ পে করতে পারবেন।
ডিজাস্টার রিলিফ কমিটির অ্যাকাউন্ট নাম্বার : BSB: 062223
Account : 10914370
বাংলাদেশ থেকে যদি কেউ সাহায্য পাঠাতে চান, তাহলে ডাচ বাংলা ব্যাংক অথবা বিকাশ করতে পারবেন। 
ডাচ বাংলা অ্যাকাউন্ট নাম্বার :
মোফাজ্জেল হোসেন 
168103114504
বিকাশ নাম্বার : 01712430290
উল্লেখ্য, মুরাদ ফরিদপুর রাজেন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অর্থনীতিতে অনার্স ও মাস্টার্স শেষ করে একটা প্রাইভেট হেলথ ফার্মে চাকুরী করছিলো। ভালোবেসে বিয়ে করেছে ওর সহপাঠীনিকে। ওদের ভালোবাসার ফসল নয় বছরের মেয়ে জাহীন এবং সদ্য ভূমিষ্ঠ আরো একটি সন্তান। গত ঈদের পর পরই মুরাদের world health organisation (WHO) তে চাকুরি প্রায় পাকা হয়ে গিয়েছিলো। হঠাৎ ওর জীবনে নেমে আসে এক ভয়াল অন্ধকার। জানা গেলো, ভয়ঙ্কর কর্কট রোগ বাসা বেঁধেছে ওর শরীরে, ও ভুগছে ব্ল্যাড ক্যান্সারে।

মুরাদের বাবা ছিলেন সরকারি হাসপাতালের ডাক্তার, মা ছিলেন সরকারি চাকুরীজীবি। বাবা মারা গিয়েছেন আর মা রিটায়ার্ড।
বড় বেশি সততার সাথে জীবন যাপন করার কারণেই ওর বাবা ওর জন্য কোনো সঞ্চয় রেখে যান নি। তাই সংকটের এই দিনে ওকে বাঁচানোর জন্যই সিডনিতে বাংলাদেশী কমিউনিটির এই প্রচেষ্টা। আয়োজকেরা ধারনা করছেন রোববারের এই ফান্ড রাইজিং ডিনারে মুরাদের চিকিৎসার জন্য কমিউনিটির সকলের বিশেষ উপস্থিতি ঘটবে।