ক্যাম্বেলটাউন কাউন্সিল নির্বাচন : স্বতন্ত্র প্যানেল নিয়ে নির্বাচন করছেন খলিল মাসুদ

  •  
  •  
  •  
  •  

প্রশান্তিকা প্রতিবেদক : আগামী ৪ ডিসেম্বর নিউ সাউথ ওয়েলস রাজ্য জুড়ে অনুষ্ঠিত হচ্ছে কাউন্সিল নির্বাচন। বরাবরের চেয়ে আরও বেশি সংখ্যক প্রবাসী বাংলাদেশী এই নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন। নির্বাচন খুব সন্নিকটে থাকায় বিভিন্ন মহলে এখন আলোচনার প্রধান বিষয় হলো এই নির্বাচন। ইতোমধ্যে প্রি পোলও শুরু হয়েছে। বাংলাদেশী অধ্যুসিত ক্যাম্বেলটাউন এলাকায় প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন খলিল মুহম্মদ মাসুদ। তিনি গতানুগতিক লেবার, লিবারেল বা কোন পার্টি থেকে না দাঁড়িয়ে সর্বস্তরের প্রতিনিধি নিয়ে গড়ে ওঠা স্বতন্ত্র প্যানেল কমিউনিটি ভয়েসের নেতৃত্ব দিচ্ছেন।

খলিল মাসুদের নেতৃত্বে গঠিত কমিউনিটি ভয়েসের প্রতিনিধিরা।

প্রশান্তিকার এই প্রতিবেদককে খলিল মাসুদ জানান, “ একটি সফল ক্যাম্পেইন সংগঠিত হয়েছে। আমি এ পর্যন্ত কমিউনিটির ভোটারদের প্রভূত সাড়া পেয়ে অভিভূত। শুধু বাংলাদেশী নয় বিভিন্ন কমিউনিটির মানুষও আমাদের গ্রহণ করেছেন।” কমিউনিটি ভয়েসকে তিনি বাংলায় নাম দিয়েছেন কমিউনিটির কন্ঠস্বর। প্রার্থী হিসেবে আপনি কী বার্তা দিচ্ছেন এ প্রশ্নের জবাবে খলিল মাসুদ বলেন, আমার মূল লক্ষ্য প্রশাসনে বিশেষ কোন রাজনৈতিক দলের এজেন্ডা নয় বরং সাধারণ মানুষের কণ্ঠস্বরকে তুলে ধরতে চাই এবং তাদের চাওয়া পাওয়াগুলো গুরুত্বের সাথে পৌঁছে দিতে চাই। কমিউনিটি ভয়েসে তিনি ১০ সদস্যের একটি প্যানেলের নেতৃত্ব দিচ্ছেন। ভোটাররা এটিকে ‘গ্রুপ ডি’ তে পাবেন। অধিকাংশ বাংলাদেশী সহ এই প্যানেল থেকে নির্বাচন করছেন খলিল মুহম্মদ মাসুদ, হালাবি খালেদ, কারকি সজন, জাবের বেলাল, খান মোরশেদা, সফিউজ্জামান এমডি, হোসাইন খুরশিদা, নাসরিন সুলতানা, সুলতানা শারমিন ও চৌধুরী আফজাল। প্যানেলে রয়েছেন চারজন নারী প্রতিনিধি। খলিল মাসুদ আরও বলেন, “ আমার লক্ষ্য কাউন্সিল ও কমিউনিটির মধ্যে যোগসূত্র জোরদার করা। কমিউনিটি ভয়েসের প্রধান আরও কয়েকটি এজেন্ডা হলো- পরিবারের সদস্যদের মধ্যে পারস্পরিক বন্ধন নিশ্চিত করে সুখী পরিবার বা হ্যাপি ফ্যামিলি গড়ে তোলা, ক্রয় ক্ষমতার মধ্যে আবাসন ব্যবস্থা বা এফর্ডেবল হাউজিং, রিনিউয়েবল এনার্জি, সেভিং ইয়ুথ প্রভৃতি।

উল্লেখ্য, খলিল মাসুদ ২০০০ সালে অস্ট্রেলিয়ায় পোস্ট গ্রাজুয়েটে পড়াশুনা করতে অস্ট্রেলিয়া আসেন। সফলতার সাথে তা সম্পন্ন করেন। কাজের পাশাপাশি তিনি কমিউনিটিতে বিভিন্ন সংগঠনের সাথে ওতপ্রোতভাবে জড়িত রয়েছেন। এছাড়া জেপি হিসেবেও কমিউনিটির সদস্যদের সহায়তা করে আসছেন। আমরা প্রশান্তিকার পক্ষ থেকে অত্যন্ত বন্ধু বৎসল, পরোপকারী খলিল মাসুদ এবং তাঁর প্যানেলের সর্বাঙ্গীন সাফল্য কামনা করি।

0 0 votes
Article Rating
Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments