পৃথিবীর বুকে মুজিব শতবর্ষের প্রথম কেক কাটলো অস্ট্রেলিয়া আওয়ামী লীগ ও অস্ট্রেলিয়া যুবলীগ

  •  
  •  
  •  
  •  

প্রশান্তিকা ডেস্ক: ১৭ মার্চের প্রথম প্রহরে, ঠিক রাত বারোটায় পৃথিবীর বুকে মুজিব জন্মশতবার্ষিকীর প্রথম কেক কাটল অস্ট্রেলিয়া আওয়ামী লীগ ও অস্ট্রেলিয়া যুবলীগ। সিডনির বাঙালি অধ্যুষিত ল্যাকেম্বা এলাকায় একশটি মোমবাতি জ্বালিয়ে কেক কেটে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন করা হয়। রাত এগারোটা থেকে দেশাত্মবোধক গান এবং বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক সাতই মার্চের ভাষণ বাজানো হয়। কেক কাটার আগে উপস্থিত শত মানুষ বাংলাদেশের জাতীয় সঙ্গীত গায়।

মুজিব শতবর্ষের কেক কাটছেন অস্ট্রেলিয়া আওয়ামীলীগ, যুবলীগের নেতা কর্মীরা। ছবি: আমিনুল ইসলাম রুবেল।

পরে অস্ট্রেলিয়া আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা এনায়েতুর রহিম বেলালের সভাপতিত্বে ও অস্ট্রেলিয়া যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক নোমান শামীমের সঞ্চালনায় এক সংক্ষিপ্ত আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় অস্ট্রেলিয়া আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. আবুল হাসনাৎ মিল্টন বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবকে আনুষ্ঠানিকতার মধ্যে আবদ্ধ রাখা যাবে না। বঙ্গবন্ধুর নিবেদিত সৈনিক হিসেবে তাঁর আদর্শকে ধারণ ও বাস্তবায়ন করাই হোক আমাদের আজকের অঙ্গীকার। এর মধ্য দিয়েই আমরা বঙ্গবন্ধুর প্রতি সর্বোচ্চ সম্মান প্রদর্শন করতে পারব। অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন অপু সারোয়ার, হাসান শিমুন ফারুক রবিন, কৃষক লীগের আহবায়ক শাহ আলম, সাংবাদিক আব্দুল মতিন এবং সেলিমা বেগম।

অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন নাসিম সামাদ, ফয়সাল মতিন, শাহে আলম, ব্যারিস্টার নির্মাল্য তালুকদার, জাকির প্রধানীয়া, উবায়দুল হক, দীপংকর বালা ডেভিড, এস এম বাবুল হাসান বাবু, আমিনুল ইসলাম রুবেল, মহিউদ্দিন কাদির, সাইফুল ইসলাম, নূর হোসেন সেলিম, বীর খান, আলী আশরাফ হিমেল, আরিফুর রহমান, ফাহাদ আসমার, খালেদ হোসেন, চমন রহমান, মাসুদা জামান ছবি, সালমিন তানহা, মোহাম্মদ হাফিজ, পলি আহমেদ, খালেদ হোসেইন সহ সাধারন প্রবাসীরা। সাংবাদিকদের পক্ষ থেকে আরো উপস্থিত ছিলেন আবু রেজা আরেফিন, আবু তারিক, আকাশ দে, তুষার খান প্রমুখ।

অনুষ্ঠান শেষে ল্যাকেম্বার রাস্তায় আনন্দ র‍্যালী বের করা হয়। রাতের নির্জনতা ভেঙ্গে শ্লোগান ওঠে, জয় বাংলা, জয় বঙ্গবন্ধু, শুভ শুভ শুভ দিন, বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন।
সংবাদ বিজ্ঞপ্তি।