‘ভালোবাসার বাংলাদেশ’ মেলা ১৫ ফেব্রুয়ারী

  •  
  •  
  •  
  •  

প্রশান্তিকা রিপোর্ট: বিশ্ব ভালোবাসা দিবসকে উপজীব্য করে তিন বছর আগে শুরু হয়েছিলো ভালোবাসার বাংলাদেশ শীর্ষক মেলাটি। আয়োজক ব্রান্ডিং বাংলাদেশ ইন্ক। অমোঘ সেই ভালোবাসার টানে এবারও অত্যন্ত জাঁকজমকের সাথে অনুষ্ঠিত হবে আগামী ১৫ই ফেব্রুয়ারী (শনিবার) ব্যাঙ্কসটাউনের পল কিটিং পার্কে ‘ভালোবাসার বাংলাদেশ’ মেলা। এবারের মেলার প্রধান আকর্ষণ বাংলাদেশের কিংবদন্তী শিল্পী শুভ্র দেব। মেলা উপলক্ষে আয়োজক কমিটি গত ২৫ জানুয়ারি সন্ধ্যায় লাকেম্বার গ্রামীন চটপটিতে এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে।

সাংবাদিক সম্মেলনে ভালোবাসার বাংলাদেশ মেলার আয়োজক, স্পন্সর ও সাংবাদিকেরা।

তরুনদের মধ্যে খুব জনপ্রিয় এই মেলাটি ইতোমধ্যে বাংলাদেশ থেকে শিল্পী এনে প্রথম থেকেই চমকের সৃষ্টি করেছে। এবারের মেলায় বাংলাদেশী কৃষ্টি ও সংস্কৃতিকে ভিনদেশীদের সাথে পরিচিত করিয়ে দিতে চলছে বর্ণিল আয়োজন। সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, এবারের “ভালোবাসার বাংলাদেশ” মেলাটির টাইটেল স্পন্সর অস্ট্রালবিল্ট (AustralBuilt ) প্রতিষ্ঠান। আয়োজকরা জানান এরই মধ্যে প্রায় শেষ হয়েছে স্টল বুকিং এর কাজ। মেলা জুড়ে গান, নাচ, কবিতা, ফ্যাশন ও ফিউশন, এবং কনসার্টের আয়োজন চলছে।
২০১৭ সালে শুরু হওয়া এই মেলার আয়োজক হচ্ছেন “ব্যান্ডিং বাংলাদেশ ইনক” নামক প্রতিষ্ঠান। এই মেলায় সিডনির প্রতিষ্ঠিত শিল্পীদের সাথে অংশ নিতে বাংলাদেশ থেকে আসছেন জনপ্রিয় শিল্পী শুভ্র দেব ও জিঙ্গেল শিল্পীরা। থাকবে সিডনিতে অবস্থানরত বিভিন্ন শিশুকিশোর সংগঠনের শিল্পীরাও।
আয়োজকদের পক্ষ থেকে সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, মেলায় চটপটি-পেয়াজু-ঝালমুড়িতে স্টলে স্টলে মেতে উঠবে সিডনির সবাই। বাহারী সব রঙের পোশাকে আসবে তারুন্য, বাজবে ঢোল। ডিজিটাল ডিসপ্লে, লেজার আর শাড়ী-চুড়িতে আবার জমবে মেলা পল কিটিং পার্ক, ব্যাঙ্কসটাউন।

ভালোবাসার বাংলাদেশ মেলার সাফল্যের কথা বলছেন স্থানীয় কাউন্সিলর শাহে জামান টিটু, পাশে উপবিস্ট মেলা স্পন্সর ও আয়োজকেরা

সংবাদ সম্মেলনে আরো জানানো হয়, মেলায় পার্কিং এবং প্রবেশ সম্পুর্ন ফ্রি। মেলা ৩টা থেকে শুরু হয়ে চলবে গভীর রাত পর্যন্ত। মেলা কমিটির পক্ষ থেকে প্রচারণার অংশ হিসেবে ইতিমধ্যে ফেসবুকে প্রচারণা, সিডনীতে পোষ্টার ও লিফলেট বিতরণ শেষ করা হয়েছে।

এই মেলার প্লাটিনাম স্পন্সর হচ্ছে অস্ট্রেলিয়া থেকে প্রকাশিত স্বনামধন্য পত্রিকা প্রভাত ফেরী, OHA হোম ডিজাইন, শর্মা কিচেন। গোল্ড স্পন্সর হয়েছে আরসিএস ল’ফার্ম, এপলো ইন্টারন্যাশনাল, প্যারিস পেসেন্স ল’ফার্ম, গ্লোবাল একাউন্টিং, লবস্টার টেইলস, স্টার কিডস, স্যাফায়ার স্টেট এজেন্টস, সিগ্নেচার ট্রাভেলস, টেলিঅজ, এমআই এডুকেশন। এছাড়াও অস্ট্রেলিয়া বাংলাদেশ প্রেস এন্ড মিডিয়া ক্লাব, নিউ সাউথ ওয়েলস স্টেট মাল্টিকালচারাল মিনিস্ট্রি ও কেন্টারবুরী কাউন্সিল এই মেলার অন্যতম পৃষ্ঠপোষক।
সংবাদ সম্মেলনে সিডনি তথা অস্ট্রেলিয়া থেকে প্রকাশিত ও প্রচারিত প্রিন্ট, অনলাইন মিডিয়ার সম্পাদক ও সংবাদকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

0 0 votes
Article Rating
Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments