মেলবোর্নে করোনায় একদিনে মৃতের সর্বোচ্চ রেকর্ড । সুস্থ রয়েছেন প্রবাসী বাংলাদেশীরা

  •  
  •  
  •  
  •  

মেলবোর্ন প্রতিনিধি: অস্ট্রেলিয়ায় করোনাভাইরাস আক্রান্তের দ্বিতীয় ধাপে ভিক্টোরিয়া রাজ্যে একদিনেই সর্বোচ্চ ৪১ জন প্রাণ হারিয়েছেন। দেশটিতে করোনায় এ পর্যন্ত এই মৃতের সংখ্যার একটি রেকর্ড। মৃতদের মধ্যে ২২ জনই একটি ওল্ড হোমের সাথে সম্পর্কিত। তবে তাদের সবাই গত ২৪ ঘন্টায় মারা যায়নি বলে স্কাই নিউজ সূত্রে জানা গেছে। তাদের মধ্যে কেউ কেউ আগেই মারা গেছেন- তাদের মৃতের তথ্যটি কাল রেকর্ড করা হয়েছে মাত্র। রাজ্যটিতে এর আগে ১৭ আগস্টে সর্বোচ্চ মৃতের সংখ্যা ছিলো ২৫ জন। অস্ট্রেলিয়ায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে এ পর্যন্ত ৬৫২ জন মারা গেছেন। মৃতদের মধ্যে ৫৫০ জনই দ্বিতীয় দফায় প্রাণ হারালেন।

মেলবোর্নের ব্রান্ডন পার্কের সুপারমার্কেটে দুই স্টাফের করোনা ধরা পড়ে। ছবি: নাইন নিউজ।

ভিক্টোরিয়ায় মৃতের সংখ্যা বাড়লেও আক্রান্তের হার ধীরে ধীরে কমে আসছে। ৩ জুলাইয়ের পরে এই প্রথম আক্রান্তের সংখ্যা একদিনে ৭৩ জনে নেমে এসেছে। রাজ্যের প্রিমিয়ার ড্যানিয়েল এন্ড্রুজ আসছে উইকেন্ডে মেলবোর্নের কিছু সাবার্বে লকডাউন সহ কিছু নিষেধাজ্ঞা শিথিল করার ঘোষণা দিয়েছেন। তবে চতুর্থ ধাপের নিষেধাজ্ঞা এখনও বহাল থাকতে পারে।

প্রবাসী বাংলাদেশীরা সুস্থ রয়েছেন

করোনায় আক্রান্ত মুক্তিযোদ্ধা কামরুল জলিল এটম সুস্থ হয়ে উঠছেন। তিনি ছাড়া মেলবোর্নে আর কোন প্রবাসী বাংলাদেশীর আক্রান্তের খবর পাওয়া যায়নি।
মেলবোর্ন থেকে চিকিৎসক ও লেখক আহমেদ শরীফ শুভ প্রশান্তিকাকে বলেন, “করোনায় আক্রান্ত কামরুল জলিল এটম ভাই এখন অনেক ভালো আছেন। তাঁকে কেবিনে শিফট করা হয়েছে । এখন আর অক্সিজেন লাগছে না। দূর্বলতা ছাড়া তেমন আর কোন উপসর্গ নেই।” চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের প্রাক্তন ছাত্র বীর মুক্তিযোদ্ধা কামরুল জলিল এটম কোভিডে আক্রান্ত হয়ে গত ১৭ আগস্টে মেলবোর্নের একটি হাসপাতালে আশংকাজনক অবস্থায় ভেন্টিলেটরে চিকিৎসা নিচ্ছিলেন। ডাক্তার শুভ আরও বলেন, “আমার জানামতো মেলবোর্নে আর কোন বাঙালী করোনায় আক্রান্ত হননি।”

0 0 votes
Article Rating
Subscribe
Notify of
guest
0 Comments
Inline Feedbacks
View all comments