সিডনিতে ফারুকীর শনিবার বিকেল হাউসফুল, পরের প্রদর্শনীর সব টিকেট শেষ

  •  
  •  
  •  
  •  
শনিবার বিকেল প্রদরশনীতে বাংলাদেশী দর্শকদের সাথে ফারুকী ও তিশা

  

প্রশান্তিকা রিপোর্ট: চলমান সিডনি ফিল্ম ফেস্টিভ্যালে বাংলাদেশের স্বনামধন্য পরিচালক মোস্তফা সরওয়ার ফারুকীর আলোচিত সিনেমা শনিবার বিকেল’র পর্দা উঠলো গতকাল সোমবার। হাউসফুল দর্শক পিনপতন নিরবতায় ছবিটি উপভোগ করেন। ছবিটির দ্বিতীয় ও শেষ শো ১৩ জুন বৃহস্পতিবার রাত ৮টা ১৫ মিনিটে একই সিনেমা হল ‘ডেন্ডি অপেরা ১’এ প্রদর্শিত হবে। উৎসবের ওয়েব সাইটে জানানো হয়েছে, শেষ প্রদর্শনীর সব টিকেট শেষ হয়ে গিয়েছে।

প্রথম দিনের প্রদর্শনীর ফাঁকে সিডনি ফিল্ম ফেস্টিভ্যালের প্রধান জেনি নেইবার তিশা ও মোস্তফা সরয়ার ফারুকীকে মঞ্চে নিয়ে আসেন।
ছবিটি দেখার সময় দর্শকেরা এতই মোহিত হয় যে পরিচালক বা অভিনেত্রীকে সামনে পেয়েও কোন প্রশ্ন বা প্রতিক্রিয়া জানাতে বিলম্ব করেন। এরপর তাঁরা দর্শকের অনেক প্রশ্নের জবাব দেন।
২০১৬ সালে ঢাকার হলি আর্টিজান রেস্টুরেন্টে জঙ্গী হামলার ঘটনা নিয়ে ছবিটি একক ক্যামেরা শটে নির্মিত হয়। ঘটনার ভয়াবহতা ও সুনিপূন নির্মানে দর্শকেরা পুরো সময় জুড়ে আচ্ছন্ন থাকেন। ছবি শেষে দর্শকেরা নির্মাতা ফারুকী ও অভিনেত্রী তিশার ভূয়শী প্রশংসা করেন।
বিশ্বের ২৫০টি সিনেমা সিডনি ফিল্ম ফেস্টিভ্যালে প্রদর্শিত হচ্ছে। পত্র পত্রিকা, উৎসব ওয়েবসাইট ও রিভ্যুগুলোতে ‘শনিবার বিকেল’ অবশ্যই দেখতে হবে তালিকায় অন্তরভূক্ত হয়েছে।

সিডনি ফিল্ম ফেস্টিভ্যালে শনিবার বিকেল প্রদর্শনীর শেষে কথা বলছেন তিশা ও ফারুকী, পাশে উৎসব ডিরেক্টর জেনি নেইবার

সিডনিতে ফারুকী ও তিশা দম্পতির খুব ব্যস্ত সময় কাটছে। ১৪ জুন তাঁরা কোগারায় সেন্ট জর্জ ব্যাংক অডিটোরিয়মে ‘কানেক্টিং দ্য ডট… ইন টকস উইথ ফারুকী এন্ড তিশা’ শীর্ষক আড্ডায় মিলিত হবেন। এই অনুষ্ঠানটি আয়োজন করেছে পথ প্রডাকশন্স ও দেশী ইভেন্টস। আয়োজকেরা জানান, এই অনুষ্ঠানটা বিনামূল্যে উপভোগ্য এবং সব প্রবেশ পত্র শেষ হয়ে গিয়েছে। পরদিন ১৫ জুন শনিবার সন্ধ্যায় ওয়ালী পার্কের হরাইজন থিয়েটারে ফারুকী ও তিশা উপভোগ করবেন আলাপন থিয়েটারের নাটক ‘লীভ মি এলোন’। নাটক শেষে সেখানেও নাটক ও সিনেমা বিষয়ক এক আড্ডার ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। নাটকটি রচনা ও নির্দেশনা দিয়েছেন জন মার্টিন। ১৭ জুন ভোরে এই তারকা দম্পতি বাংলাদেশের উদ্দেশে সিডনি ত্যাগ করবেন বলে জানা গেছে।