সিডনি শহরে ছুড়ি হাতে রক্তমাখা যুবক আটক, এক নারী নিহত

  •  
  •  
  •  
  •  

প্রশান্তিকা রিপোর্ট: আজ সিডনি শহরের প্রাণকেন্দ্রে বিকেল চারটার দিকে রক্তমাখা শার্ট গায়ে হাতে ছুড়ি নিয়ে দৌঁড়ানো অবস্থায় এক যুবককে আটক করা হয়েছে। পুলিশ নিশ্চিত করেছে একই ব্যক্তি অদূরে ক্লারেন্স স্ট্রিটে এক এপার্টমেন্টে এক নারী তাঁর আঘাতে নিহত হয়েছে এবং অপর একজন আহত হয়েছে। ছুড়ি হাতে যুবকের দৌঁড়ানো দেখে ব্যস্ত রাস্তার লোকজন সন্ত্রাসী আক্রমণের আশংকায় দিগবিদিক ছুটছিলো। ঘটনার পরে এই প্রতিবেদক সিডনির উইনইয়ার্ড স্টেশনের পাশে ক্যারিংটন স্ট্রিটে বিপুল সংখ্যক পুলিশ, ফায়ার ব্রিগেড ও মিডিয়ার উপস্থিতি দেখতে পায় ।

বিকেল সাড়ে পাঁচটায় এক সংবাদ সম্মেলনে নিউ সাউথ ওয়েলস পুলিশ কমিশনার জানিয়েছেন, আপাত দৃষ্টিতে এটা কোন সন্ত্রাসী হামলা বা টেরর এটাক নয়। আঘাতকারী ব্যক্তির নাম মার্ট নি। সে সিডনির ব্লাকটাউনের কাছের এলাকা মারাইয়ং নিবাসী।
পুলিশ ধারনা করছে, সে এপার্টমেন্টে খুনের ঘটনা ঘটানোর পরেই রাস্তায় নেমে আসে। এসময় তার শার্ট রক্তমাখা ছিলো এবং হাতে ছুড়ি ছিলো। সিডনি ফায়ার ফাইটারের সদস্য তার পিঁছু ধাওয়া করে। এসময় সে উইনইয়ার্ড স্টেশনের পাশের রাস্তায় এক গাড়ির বোনেটের ওপর উঠে পড়ে। এরপর পাশের এক অফিসে কর্মরত লি কুটবার্ট নামে একজন অপর দুজন কলিগের সাথে রাস্তায় নেমে আসে এবং বোনেট থেকেই তাকে ধরে ফেলেন। এরপর ফায়ার সার্ভিস সদস্যের সহায়তায় পুলিশ তাকে আটক করে।

পুলিশে আটক ছুড়ি ও রক্তমাখা শার্ট গায়ে অবস্থায় হামলাকারী। ছবি: সিডনি মর্নিং হেরাল্ড।

সংবাদ সম্মেলনে পুলিশ কর্মকর্তারা জানান, সিডনি সম্পূর্ন আতংক মুক্ত। তবে ব্যাপক পুলিশি অভিযানের কারনে সিবিডিতে ট্রাফিক জ্যামের সৃষ্টি হয়েছে। দূরপাল্লা ও ছোট ছোট রুটে প্রায় ৩০টির মতো বাস সার্ভিস বিঘ্নিত হয়েছে।
সুত্র: রেডিও ও সিডনি মর্নিং হেরাল্ড।