সূচিত হলো ভারত বধ

  •  
  •  
  •  
  •  

প্রশান্তিকা ডেস্ক: ক্রিকেটের টি টোয়েন্টি ফরম্যাটে বাংলাদেশ এর আগে ৮বারের প্রচেষ্টায় বেশ ক’বার ভারতকে হারাতে যেয়েও হারাতে পারেনি। অবশেষে সাকিব তামিম ছাড়া বাংলাদেশ দল বিস্ময়করভাবে ভারতকে হারিয়ে দিলো। গত ৪ নভেম্বর ভারত বাংলাদেশ সিরিজের প্রথম ম্যাচে ৮ উইকেট এবং ৩ বল হাতে রেখেই ভারতের মাটিতেই রোহিত শর্মাদের হারিয়ে জয় ছিনিয়ে নেয় টাইগাররা। সতীর্থদের জয়ে অভিনন্দন জানিয়েছেন সাকিব আল হাসান।

ম্যাচ জেতার পর উল্লসিত বাংলাদেশ দল

দিল্লীর অরুণ জেটলি স্টেডিয়াম ভারতের বিপক্ষে প্রথম টি-টোয়েন্টি জয়ের রেকর্ডটা লিখলো অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ’র নেতৃত্বে বাংলাদেশ দল।মুশফিকের হাফসেঞ্চুরিতে সফরকারীরা পেয়েছে ৭ উইকেটের জয়। ৪৩ বলে ৬০ রানের অপরাজিত ইনিংসে নিজেকে নতুন করে প্রমাণ করলেন মুশফিকুর রহিম। মুশফিকই ম্যান অব দ্য ম্যাচ হয়েছেন।

ম্যান অব দ্য ম্যাচ মুশফিকুর রহিম

টস জিতে বাংলাদেশ দল প্রথমেই ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয়। ভারত প্রথম ব্যাটিং করে নির্ধারিত ২০ ওভারে পাঁচ উইকেট হারিয়ে ১৪৮ রান সংগ্রহ করে। মুশফিক ১৯তম ওভারে খলিল আহমেদকে টানা চারটি বাউন্ডারি হাঁকান। এটি মুশফিকের টি-টোয়েন্টির ক্যারিয়ারে পঞ্চম ফিফটি। মুশফিক ৪৩ বলে আটটি চার আর একটি ছক্কায় ৬০ রানে অপরাজিত থাকেন। মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ৭ বলে ১৫ রান করে অপরাজিত থাকেন। দিল্লির অরুণ জেটলি স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা ৭টায় ম্যাচটি শুরু হয়। এ ম্যাচের মধ্যদিয়ে বাংলাদেশের মোহাম্মদ নাঈমের অভিষেক হয়েছে। ব্যাটিং ছাড়াও বোলিংয়ে দূর্দান্ত করেছেন বোলাররা।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:
ভারত: ২০ ওভারে ১৪৮/৬ (ধাওয়ান ৪১, রোহিত ৯, রাহুল ১৫, শ্রেয়াস ২২, পান্ত ২৭, দুবে ১, পান্ডিয়া ১৫*, সুন্দর ১৪*; শফিউল ৪-০-৩৬-২, আল আমিন ৪-০-২৭-০, মুস্তাফিজ ২-০-১৫-০, আমিনুল ৩-০-২২-২, সৌম্য ২-০-১৬-০, আফিফ ২-০-১৫-০, মোসাদ্দেক ১-০-৮-০, মাহমুদউল্লাহ ১-০-১০-০)
বাংলাদেশ: ১৯.৩ ওভারে ১৫৪/৩ (লিটন ৭, নাঈম ২৬, সৌম্য ৩৯, মুশফিক ৬০*, মাহমুদউল্লাহ ১৫*; চাহার ৩-০-২৪-১, সুন্দর ৪-০-২৫-০, খলিল ৪-০-৩৭-১, চেহেল ৪-০-২৪-১ , পান্ডিয়া ৪-০-৩২-০, দুবে ০.৩-০-৯-০ )।
বাংলাদেশ ৭ উইকেটে জয়ী।